Thursday , June 21 2018
Breaking News

ইয়াবা ব্যবসা’র টাকা দিয়ে গড়েছেন ‘রাজপ্রাসাদ’, প্রাণ বাঁচাতে সব ফেলে পথে-প্রান্তরে গডফাদাররা!

কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলায় বেশ কয়েকটি গ্রামে রাজপ্রাসাদের মতো বাড়ি বানিয়েছেন ইয়াবা ব্যবসায়ীরা। ইয়াবা দেশ ও দেশের যুব সমাজকে ধ্বংসের পথে ধাবিত করছে। এর পরিপ্রেক্ষীতে মে মাসে শুরু হয় মাদকবিরোধী অভিযান। তারই সূত্র ধরে বৃহস্পতিবার রাত থেকে শুক্রবার ভোর পর্যন্ত কক্সবাজারের টেকনাফ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রনজিত কুমার বড়ুয়া ও পরিদর্শক রাজু আহমদের নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল টেকনাফ পৌরসভার চৌধুরী পাড়া, জালিয়া পাড়া, দক্ষিণ জালিয়া পাড়া গ্রামে অভিযান চালায়। এসময় অর্ধশতাধিক বাড়িতে হানা দেয় পুলিশ। তবে অভিযানে কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি। এর মধ্যে টেকনাফ পৌরসভার জালিয়া পাড়ার ইয়াবা ব্যবসায়ী ও ১১ মামলার পলাতক আসামি মো. জোবাইর এবং তালিকাভুক্ত শীর্ষ ইয়াবা ব্যবসায়ী মোজাম্মেল হক, মো. সালমান, মো. হাসান আলী, রেজাউর করিম রেজা, মো. আবদুল্লাহ ও তার ভাই মো. জব্বারের বাড়ি ছিল।

কক্সবাজারের টেকনাফে ইয়াবা ব্যবসার টাকায় গড়ে উঠা রাজপ্রাসাদের মতো বাড়িগুলোতে অভিযান চালিয়েছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার রাত থেকে শুক্রবার ভোর পর্যন্ত টেকনাফ পৌরসভার তিনটি গ্রামে পুলিশ অভিযান চালায়। এর আগে গত সোমবার ‘বাড়ি ছেড়ে পালিয়েছে ইয়াবা গডফাদাররা’ শিরোনামে সংবাদ প্রকাশিত হয়।

অভিযান পরিচালনাকারি পরিদর্শক রাজু আহমদ বলেন, ইয়াবার টাকায় টেকনাফে অনেকে রাজপ্রসাদের মতো বাড়ি বানিয়েছেন। তার মধ্যে ইয়াবা ব্যবসায়ী জোবাইরের বাড়িতে তল্লাশি চালানো হয়। তার বাড়ি দেখলে মনে হয়, এটা যেন কোন রাজার বাড়ি। এতো সুন্দর বাড়ি ঢাকা শহরে চোখে পড়েনি।

টেকনাফ মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রনজিত কুমার বড়ুয়া বলেন, ইয়াবা ব্যবসায়ীদের ধরতে তাদের বাড়িতে অভিযান চালানো হয়েছে। কোন মাদক ব্যবসায়ীকে ছাড় দেওয়া হবে না। ইয়াবা বন্ধ না হওয়া পর্যন্ত এ অভিযান চলবে। তবে অভিযানের সময় বাড়িতে কেউ ছিলেন না।

Facebook Comments